এক্সক্লুসিভ সংবাদ

উত্তরায় প্লট দখল করে আ’লীগ নেতার ‘অবৈধ’ দোকানপাট, বস্তিতে মাদক ব্যবসা

  প্রতিনিধি ২৮ জানুয়ারি ২০২৪ , ৯:১০:১৫

Spread the love

ঢাকার উত্তরা এলাকার ১৪ নং সেক্টরে খালি প্লট ও ফুটপাত দখল করে চলছে বস্তি-বাণিজ্য। বস্তির কয়েক শ ঘর থেকে তোলা হচ্ছে ভাড়া। চলছে মাদকদ্রব্যের ব্যবসাও। বস্তিটি নিয়ন্ত্রণ করছেন আওয়ামী লীগের স্থানীয় নেতা আলাউদ্দিন আল সোহেল ও তার সহযোগী নেতা-কর্মীগন।
রাজধানীর উত্তরার আহালিয়া খেলার মাঠ সংলগ্ন প্রায় ত্রিশ থেকে ৪০টি প্লট দখল করে বস্তি বানিয়ে রেখেছে সাবেক এমপি হাবিব হাসান এর ভাই আলাউদ্দিন আল সোহেলের ঘনিষ্ঠ সহযোগি তুরাগ থানা আওয়ামী লীগ এর কার্যনির্বাহী সদস্য মোহাম্মদ রাইসুল ইসলাম লিটন এছাড়াও বরকত ও আলম হোসেন।

স্থানীয় বাসিন্দারা জানান, বস্তিটি এলাকার পরিবেশের জন্য হুমকি এবং এলাকাবাসীর জন্য অস্বস্তির কারণ হয়ে উঠেছে।এছাড়া সবচেয়ে বড় সমস্যা হয়ে দাড়িয়েছে মাদক ব্যবসা।মাদক ব্যবসা ও বস্তি নিয়ন্ত্রণ করেন রাইসুল ইসলাম লিটন।

আলম হোসেন ও বরকত উল্লাহ্

চায়ের দোকানে এক অটোরিকশা চালক জানান,অটোরিকশার জন্য বরকত ও আলম হোসেন প্রতি মাসে দুই হাজার করে চাঁদা আাদায় করেন।আমরা গরিব মানুষ, আমাগো টেকা নিয়া হেরা বড় লোক হয়।আমগো দেহনের কেউ নাই।

খেলার মাঠ সংলগ্ন ফুটপাত গুলোতে থাকা দোকান থেকেও চাঁদা আাদায় করা হয় বলে দোকানদারগন দাবি করেন।

মোহাম্মদ রাইসুল ইসলাম লিটন

বস্তি গুলো থেকে আসা মাসিক ভাড়া,মাদক ব্যবসার টাকা,ফুটপাতের দোকানের চাঁদা ও অটোরিকশা থেকে তোলা মাসিক চাঁদা সব কিছুই রাইসুল ইসলাম লিটন এর নিয়ন্ত্রণে তবে এর ভাগ পান সাবেক এমপি ভ্রাতা আলাউদ্দিন আল সোহেল।এজন্য এলাকায় কেউ কোন কথা বলার সাহস পাননা।

এলাকাবাসীর দাবী কতৃপক্ষের ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দৃষ্টি দিলে মাদকের থাবা থেকে আহালিয়া তথা উত্তরা ১৪ নং সেক্টরবাসী স্বস্তি পেতো।

আরও খবর

Sponsered content