রাজনীতি

বিএনপি জনগণের কাছে ঘৃণিত দল-হানিফ

  প্রতিনিধি ১৭ জুন ২০২৩ , ৩:৩২:৫৩

Spread the love

আওয়ামী লীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক এবং পানি সম্পদ উপ-মন্ত্রী এ কে এম এনামুল হক শামীম বলেছেন, বিএনপি নেতাদের আন্দোলন-আন্দোলন খেলা বন্ধ করে জনগণের কাছে যেতে হবে।আওয়ামী লীগ সরকারকে আন্দোলনের ভয় দেখিয়ে লাভ নেই। আওয়ামী লীগ দেশের গণমানুষের দল। আর বিএনপি জনগণের কাছে ঘৃণিত দল।

শনিবার (১৭ জুন) জেলার নড়িয়া উপজেলার কেদারপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের উদ্যোগে আয়োজিত সদস্য নবায়ন ও সংগ্রহ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে একথা বলেন তিনি।

তিনি বলেন, তাদের (বিএনপি) অতীতের অপকর্ম, লুটপাট, অর্থপাচার, আগুন দিয়ে পুড়িয়ে মানুষ হত্যার জন্য ক্ষমা চাইতে হবে। সাড়ে চৌদ্দ বছর ধরে আন্দোলন করে আসছেন, জনগণের সাড়া নেই। যে আন্দোলনে জনগণের সাড়া নেই, সে আন্দোলন কোনোদিন সফল হয় না।

শামীম বলেন, বিএনপি যদি জনগণের সমর্থন ও নিজেদের সাংগঠনিক শক্তি থাকে তাহলে তাদের নির্বাচনে আসা দরকার। জনগণই তাদের সমুচিত জবাব দিয়ে দেবে।

তিনি বলেন, এদেশের জনগণ কিন্তু পেট্রোল দিয়ে মানুষ পুড়িয়ে হত্যা করার কথা ভুলেনি। জনগণ গণধিকৃত বিএনপিকে আবারও প্রত্যাখানের জন্য প্রস্তুত। আর এত আন্দোলনের হুংকার না দিয়ে বিএনপি নিজের নেতৃত্ব আগে ঠিক করুক। ওই দলে দুই শীর্ষ নেতাই সাজাপ্রাপ্ত আসামি।

তিনি আরও বলেন, বেগম খালেদা জিয়া এতিমে টাকা মেরে খেয়ে সাজাপ্রাপ্ত হয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কৃপায় বাসায় আরাম-আয়েশে বসবাস করছেন। আর তার ছেলে তারেক রহমান বিদেশে পলাতক থেকে দেশকে অশান্ত করার প্রেসক্রিপশন পাঠায়।

উপ-মন্ত্রী বলেন, আবারও দেশকে অশান্ত করার চেষ্টা করলে আওয়ামী লীগ এদেশের জনগণকে সঙ্গে নিয়ে মাঠে নামলে বিএনপির পালানোর পথ থাকবে না। ১৯৯৬ সালে ১৫ ফেব্রুয়ারির পাতানো নির্বাচন করে আওয়ামী লীগের আন্দোলনের মুখে বিএনপি ক্ষমতা ছেড়ে পালিয়ে গিয়েছিল। তারেক রহমান রাজনীতি করবে না বলে মুচলেকা দিয়ে দেশ ছেড়ে পালিয়েছিল। সে কথা এদেশের মানুষ ভুলেনি।

এনামুল হক শামীম বলেন, আগুন-সন্ত্রাসী ও লুটপাটকারী দল বিএনপি সব ষড়যন্ত্র, আন্দোলন ও নির্বাচনে ব্যর্থ হয়ে বিদেশি প্রভুদের কাছে ধর্নায় মগ্ন। বিদেশিরা কখনো আর এদেশের ক্ষমতার মসনদ পরিবর্তন করতে পারবে না। সময় থাকতে বিএনপিকে জনগণের আস্থা অর্জনের চেষ্টা করতে হবে।

তিনি বলেন, সংবিধান সম্মতভাবে অনুষ্ঠিত আগামী নির্বাচনে অংশগ্রহণ করতে হবে। অন্যথায় যেভাবে অতীতে জনগণ দ্বারা আস্তাকুঁড়ে নিক্ষিপ্ত হয়েছে, ভবিষ্যতে বিএনপির অস্তিত্ব সংকটে পড়তে হবে।

তিনি আরও বলেন, বঙ্গবন্ধু কন্যার নেতৃত্বে দেশ আজ সব সূচকে এগিয়ে যাচ্ছে। কোনো ষড়যন্ত্রই এই অগ্রগতিকে ব্যাহত করতে পারবে না। আগামী নির্বাচনে শেখ হাসিনা পঞ্চমবারের মতো ক্ষমতায় আসবেন এবং পৃথিবীর ইতিহাসে এক বিরল নজীর স্থাপন করবেন।

কেদারপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি মোতাহার হোসেন শিকারীর সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক শহিদুল ইসলাম বাদলের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ছাবেদুর রহমান খোকা সিকদার। অনুষ্ঠানে সাধারণ সম্পাদক অনল কুমার দে, নড়িয়া পৌরসভার মেয়র আবুল কালাম আজাদ, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা ফজলুল হক মাল, সাধারণ সম্পাদক হাসানুজ্জামান খোকন, উপদেষ্টা আবুল বাশার দেওয়ান, সহ-সভাপতি ইমাম হোসেন দেওয়ান ও সাংগঠনিক সম্পাদক মিহির চক্রবর্ত্তী প্রমুখ বক্তৃতা করেন।

আরও খবর

Sponsered content